কে হচ্ছেন ‘মিস ওয়ার্ল্ড’ বাংলাদেশ?

এবারই প্রথম বিশ্ব সুন্দরীদের সবচেয়ে কাঙ্খিত আসর ‘মিসওযার্ল্ড’ প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। আগামী ১৮ নভেম্বর চীনের সানাইয়া শহরে অনুষ্ঠেয় ৬৭ তম আসরে থাকবে বাংলাদেশের প্রতিযোগী।

২৫০০০ প্রতিযোগীর মধ্য থেকে বিভিন্ন পর্যায়ে বাছাই শেষে গত ঈদের আগের দিন থেকে এনটিভিতে শুরু হয় মূল আয়োজন অডিশন রাউন্ড পর্ব-১। চলতি সপ্তাহে ৪২ জন প্রতিযোগী থেকে টিকে থাকেছে ২২ প্রতিযোগী। ফলে কাঙ্ক্ষিত মিস ওয়ার্ল্ড খুঁজে পাওয়ার ক্ষেত্রে অনেকটাই এগিয়ে যাচ্ছে প্রতিযোগিতাটি।

প্রতিযোগিতার ফেসবুক পেজ এবং সোশ্যাল মিডিয়ায় এর মধ্যেই সেই উত্তাপ ছড়িয়ে পড়েছে। সবাই বলছেন, এবার জমে উঠেছে মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ। এই অনুষ্ঠানটি সপ্তাহের প্রতি শুক্রবার ও শনিবার রাত ৯টা ৫ মিনিটে এবং মঙ্গলবার ও বৃহস্পতিবার রাত ১১টা ৩০ মিনিটে এনটিভিতে প্রচার হচ্ছে।

টলেন্ট রাউন্ড, কর্পোরেট রাউন্ড, ফটোসুট রাউন্ড পর্যায়ক্রমে বিভিন্ন পর্ব শেষে গ্রান্ড ফিনালে রাউন্ড হবে ২৯ সেপ্টেম্বর। সেদিনই বিচারকের রায়ে খুঁজে পাওয়া যাবে মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশকে। এরপরই চীনের মূল আসরে যোগ দেবেন বাংলাদেশি প্রতিযোগী।

যিনি ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ বিজয়ী হবেন, তিনিই ৬৭ তম বিশ্বসুন্দরী প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করবেন। এটি আয়োজন করছে অন্তর শোবিজ ও ওমিকন এন্টারটেইনমেন্ট।

আয়োজন প্রসঙ্গে অন্তর শোবিজের চেয়ারম্যান স্বপন চৌধুরী বলেন, মিস ওয়ার্ল্ড শুধু দেশেই না বরং আন্তর্জাতিকভাবে বাংলাদেশকে তুলে ধরবে।

টাইটেল স্পন্সর লাভেলো ছাড়াও মিসওয়ার্ল্ড বাংলাদেশের সঙ্গে আরো রয়েছে সজীব গ্রুপ, রংধনু গ্রুপ, ভীশনসহ আরো অনেক পার্টনার এবং এসোসিয়েটরা ।