যেভাবে জন্মদিন পালন করবেন ওমর সানি













নব্বইয়ের দশকের ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় চিত্রনায়ক ওমর সানী। দুই যুগেরও বেশি সময় ধরে রুপালি জগতে তার পথচলা। এই অভিনেতার অসংখ্য ব্যবসাসফল সিনেমা আজও দর্শকের মনে গেঁথে আছে।

আজ ৬ মে। ১৯৬৯ সালের এই দিনে জন্মগ্রহণ করেন ওমর সানী। আজ তার জন্মদিন।

সাধারণত ঘটা করে জন্মদিন পালন করেন না এই অভিনেতা। তবে বন্ধু ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের অনুরোধে এবারের জন্মদিনটি বেশ ঘটা করেই পালন করবেন এই দাপুটে চিত্রনায়ক। রাজধানীর একটি রেস্তরাঁয় আত্মীয়-স্বজন ও শোবিজ অঙ্গনের বন্ধুদের নিয়ে এই দিনটি উদযাপন করবেন বলে জানান তিনি।

এ প্রসঙ্গে ওমর সানী বলেন, ‘মে মাসে আমার মা পৃথিবী থেকে হারিয়ে গেছেন। যে কারণে আমি জন্মদিনটা ঘটা করে পালন করি না। তবে এবার আর পালন না করে পারছি না। বন্ধু-বান্ধব ও শুভাকাঙ্খীদের অনুরোধে এ বছরের জন্মদিনটা সবাইকে নিয়ে পালন করছি।’

তিনি আরো বলেন, ‘জন্মদিনে সকলের কাছে দোয়া চাচ্ছি, যেন বাকিটা জীবন মানুষের দোয়া-ভালোবাসা পেয়ে বেঁচে থাকতে পারি। আর আমার ভক্ত-শুভাকাঙ্ক্ষীদের ও রাইজিংবিডি পরিবারের প্রতিও জানাই শুভেচ্ছা।’

ওমর সানীর জন্ম, শৈশব, কৈশোর কেটেছে পুরাণ ঢাকার জিঞ্জিরা এবং কালীগঞ্জে। ক্রিকেট, ফুটবল ছাড়াও অনেক খেলায় পারদর্শী ছিলেন তিনি। তবে তার ইচ্ছে ছিল একদিন চলচ্চিত্রের নায়ক হবেন। পরিবারের উৎসাহ আর বাবার অনুপ্রেরণায় রুপালি দুনিয়ায় পথ চলা শুরু হয় ওমর সানীর।

১৯৯৩ সালে ‘চাঁদের আলো’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিষেক ঘটে ওমর সানীর। শেখ নজরুল পরিচালিত এ সিনেমার সাফল্যের পর আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। এর পরই মূলত বাংলা চলচ্চিত্রের অন্যতম জনপ্রিয় নায়ক হিসেবে দর্শক হৃদয়ে ঠাঁই করেছেন আজকের ওমর সানী। এরপর তিনি একে একে ‘কুলি’, ‘প্রেম প্রতিশোধ’, ‘মহৎ’, ‘আখেরি হামলা’, ‘চাঁদের হাসি’, ‘আত্ম অহংকার’, ‘আমি তুমি সে’সহ আরো অনেক দর্শকপ্রিয় চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন।

১৯৯৪ সালে ‘দোলা’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন ওমর সানী। এতে তার বিপরীতে অভিনয় করেন চিত্রনায়িকা মৌসুমী। এটিই এই জুটির প্রথম সিনেমা। পরবর্তী সময়ে নব্বই দশকের অন্যতম জনপ্রিয় জুটিতে পরিণত হন তারা।

চলচ্চিত্রে অভিনয় করার সময় ওমর সানী এবং মৌসুমীর পরিচয় পরিণয়ে পরিণত হয়। এরপর ১৯৯৬ সালের ২ আগস্ট চিত্রনায়িকা মৌসুমীর সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন ওমর সানী। এই দম্পতির দুই সন্তান-ফারদিন এহসান স্বাধীন (পুত্র) এবং ফাইজা (কন্যা)।