যে কারণে বিব্রত বোধ করছেন অপু বিশ্বাস












গত কয়েকদিন ধরেই শাকিব-অপুর বিবাহবিচ্ছেদের গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। বিভিন্ন গণমাধ্যমে ঘনিষ্ঠ সূত্রের বরাদ নিয়ে প্রকাশিত হয়েছে অনেক খবর।

শাকিব খান ও তাঁর পরিবার এ বিষয়ে সরাসরি কথা না বললেও পারিবারিক ও ঘনিষ্ঠ সূত্রের বরাত দিয়ে এসব খবর প্রকাশের উৎস জানতে চেয়েছেন অপু বিশ্বাস।

গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় রাজধানীর এক ক্যাফেতে সবুজ সাগর হাউজিং কোম্পানির ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে চুক্তি স্বাক্ষর করেন তিনি। সেসময় সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে অপু এমন মন্তব্যই করেন।

সংবাদ মাধ্যমগুলো থেকে নিজেই বিবাহ বিচ্ছেদের খবর জেনেছেন বলে জানান অপু। এ বিষয়ে অপু বলেন, ‘আমি ঘুম থেকে উঠে খবরের কাগজ পড়ে আমার বিবাহ বিচ্ছেদের খবর জানতে পারি। আমার বিয়ে ভাঙছে অথচ আমি নিজেই জানিনা। এগুলো কতটা নির্ভরযোগ্য খবর তা এখান থেকে বোঝা যায়। বিষয়টি নিয়ে আমি বিব্রত। আপনাদের অনুরোধ করব,এমন গোপন সূত্র দিয়ে খবর করে আমাদের বিব্রত করবেন না।’

নতুন ছবিতে চুক্তির হওয়ার কারণে বিবাহবিচ্ছেদ হতে চলেছে কি না জানতে চাইলে অপু বলেন, ‘আসলে কাজের সাথে ক্যারিয়ার যুক্ত। আর পারিবারিক জীবন একেবারে ব্যক্তিগত। যে কারণে এখানে একটা কাজের জন্য অন্য আরেক একটি কাজ বাধা হতে পারে না।’

অপু আরো বলেন, ‘গোপন সূত্রটা কী আমি জানি না। কারণ আমি অভিনয়শিল্পী। অভিনয় কীভাবে করতে হয় তা বলতে পারব। শাকিব বর্তমানে দেশের বাইরে শুটিং নিয়ে ব্যস্ত আছে। এ বিষয় সে বা তার পরিবার আমাকে কিছু বলেনি। আমিও এ বিষয়ে কিছু বলতে চাই না।’

গত এপ্রিলে ঢাকাই ছবির নতুন নায়িকা শবনম বুবলীর সঙ্গে শাকিব ঘরোয়া পরিবেশে একটি ছবি তোলেন। ছবিটিতে ‘ফ্যামিলি টাইম’ ক্যাপশন লিখে নিজের সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে প্রকাশ করেন বুবলী। এরপরই অপু বিশ্বাসের সঙ্গে সম্পর্কের অবনতি ঘটে শাকিব খানের। ছবিটি প্রকাশের পরপরই গণমাধ্যমে দীর্ঘদিন গোপনে থাকা বিয়ে ও সন্তানের বিষয়টি খোলাসা করেন অপু।